ত্বরণ কাকে বলে? সূত্র, একক, মাত্রা, রাশি, ত্বরণ এবং বেগের মধ্যে পার্থক্য

  • কোনো বস্তুর বেগ যদি ক্রমশ বাড়তে থাকে, তখন সময়ের সাথে ওই বস্তুর বেগের পরিবর্তনের হারকে ত্বরণ বলে
  • কোনো বস্তুর বেগ যদি ক্রমশ বাড়তে থাকে, একক সময়ে বেগের বৃদ্ধিকেই ত্বরণ বলা হয়
  • সময়ের সাথে সাথে কোনো বস্তুর বেগ বৃদ্ধির হারকে ত্বরণ বলা হয়

ত্বরণের সূত্র

কোন গতিশীল বস্তুর প্রারম্ভিক বেগ যদি u হয় এবং t সময় পরে ওই বস্তূর চূড়ান্ত বেগ যদি v হয়, তাহলে ওই বস্তুর ত্বরণ(f) = বস্তুর অন্তিম বেগ(v) - বস্তুর প্রাথমিক বেগ(u)/ অতিক্রান্ত সময় (t)।

অর্থাৎ বস্তুর ত্বরণ, f=(v-u)/t

ত্বরণের একক কি?

  • C.G.S পদ্ধতিতে ত্বরণের একক – সেন্টিমিটার প্রতি বর্গ সেকেন্ড (cm/s2)
  • S.I পদ্ধতিতে ত্বরণের একক – মিটার প্রতি বর্গ সেকেন্ড (m/s2)
  • FPS পদ্ধতিতে ত্বরণের একক – ফুট/ সেকেন্ড2
  • এম কে এস (MKS) পদ্ধতিতে ত্বরণের একক মিটার/সেকেন্ড2

ত্বরণের মাত্রা

ত্বরণের মাত্রা [LT-2]


ত্বরণের রাশি কি?

ত্বরণের মান এবং অভিমুখ দুই আছে তাই ত্বরণ একটি ভেক্টর রাশি।


ত্বরণ এবং বেগের মধ্যে পার্থক্য কি?

বেগত্বরণ
বেগ একটি নির্দিষ্ট দিকে একটি বস্তুর গতি হিসাবে সংজ্ঞায়িত করা হয়।সময়ের সাপেক্ষে কোনো বস্তুর বেগের পরিবর্তন হিসেবে ত্বরণকে সংজ্ঞায়িত করা হয়।
স্থানচ্যুতি/সময়বেগ/সময়
একক হলো ms -1একক হলো ms -2

তাৎক্ষণিক ত্বরণ কাকে বলে ?

তাৎক্ষণিক ত্বরণ: কোনো মুহূর্তকে ঘিরে অতি অল্প সময় ব্যবধান সময়ের সাপেক্ষে বস্তুর বেগের পরিবর্তনের হার।

মহাকর্ষীয় ত্বরণ কি?

মহাকর্ষীয় ত্বরণ মহাকর্ষীয় ক্ষেত্রের তীব্রতা নির্দেশ করার জন্য ব্যবহৃত হয়। 
এটিকে m/s2 হিসাবে প্রকাশ করা হয় এবং পৃথিবীর পৃষ্ঠে এর মান হল 9.8 m/s2।

অসম ত্বরণ কাকে বলে ?

অসম ত্বরণ: যদি কোনো বস্তুর গতিকালে তার ত্বরণের মান বা দিক বা উভয়ই পরিবর্তিত হয়।

সমত্বরণ কাকে বলে ?

সমত্বরণ: কোনো বস্তুর বেগ যদি নির্দিষ্ট দিকে সব সময় একই হারে বাড়তে থাকে।

সুষম ত্বরণ কাকে বলে ?

সুষম ত্বরণ: কোনো বস্তুর বেগ যদি নির্দিষ্ঠ দিকে সবসময় একই হারে বাড়তে থাকে ।

অসম ত্বরণ কাকে বলে ?

অসম ত্বরণ: যদি কোনো বস্তুর গতিকালে তার ত্বরণের মান বা দিক বা উভয়ই পরিবর্তিত হয়।

শেয়ার করুন

Leave a Comment

Your email address will not be published.